বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১২:৪০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
শিরোনাম
হিট স্ট্রোকে অটোচালকের মৃত্যু পরকীয়া করতে গিয়ে যুবক খুন, আটক ৩ ভোট গ্রহনে অনিয়ন হলে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের চাকুরী থাকবে না… নির্বাচন কমিশনার সাতক্ষীরা পৌর এলাকায় সুপেয় পানি সরবরাহ নিশ্চিত ও বর্ধিত পানির বিল প্রত্যাহারের দাবীতে গণঅবস্থান কর্মসূচী গাবুরা ইউনিয়ন জলবায়ু সহনশীল ফোরামের অর্ধবার্ষিক সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত শ্যামনগরে আমন মৌসুমে ১১৪৮০ কেজি ধানবীজ ও ৯১৮৪ কেজি সার বিতরণ করেছে লিডার্স ব্যাঙ সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধিতে সাইক্লিং রবিবার থেকে শুরু হচ্ছে এসএসসি, দাখিল ও সমমানের পরীক্ষা ঝিনাইদহে বর্নাঢ্য আয়োজনে জাতীয় আইনগত সহায়তা দিবস পালিত কুষ্টিয়ায় ভেজাল কসমেটিকস কারখানায় র‍্যাবের অভিযান,দের লক্ষ টাকা জরিমানা

আমার নিজের জমি নাই, আপনারা ঘর ও জমির মালিক: ইউএনও

নিজস্ব প্রতিবেদক / ১৭৬ বার পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : বুধবার, ২৭ এপ্রিল, ২০২২, ১০:৪২ পূর্বাহ্ন

‘আমার নিজের নামে জমি নাই, আমি এখনো ২ শতাংশ জমির মালিক হতে পারিনি। কিন্তু আপনার আজ জমি ও ঘরের মালিক। প্রধানমন্ত্রী আপনাদের ঘর ও জমি দিয়েছেন। মালিকানা দলিল এবং নামজারি করে দেওয়া হয়েছে। দয়া করে ঘরটি যত্ন করবেন, ঘরের পাশে শাকসবজি লাগিয়ে খাবেন।’

হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সিদ্ধার্থ ভৌমিক মঙ্গলবার সকালে উপজেলা সভাকক্ষে পানছড়ি আশ্রয়ন প্রকল্পে ১০০ জন গৃহহীনের হাতে জমির দলিল তুলে দেওয়ার পর উপকারভোগীদের এসব কথা বলেন।

ঈদের আগে ঘর ও জমি পেয়ে উপকারভোগীরা আনন্দিত উচ্ছসিত।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বলেন, এসব জমি অনেকের দখলে ছিল,জমি উদ্ধার করে সেখানে ঘর করে দেওয়া হয়েছে। সেখানে পানি বিদ্যুতের সুবিধা রয়েছে। পাশেই রয়েছে অলিপুর শিল্পকারখানা। সেখানে তারা কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করতে পারবে। পানছড়ি দেশের বৃহত্তম আশ্রয়ন প্রকল্প।

ঈদুল ফিতর উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর উপহার আরো ১শ গৃহ ও ভুমিহীন পরিবার সেখানে ঠাঁই পেয়েছে। তৃতীয় পর্যায়ের এসব ঘর নির্মাণ করা হয়। এর আগে উপজেলায় একক ভুমিহীন হিসেবে সেখানে ঘর পেয়েছে ৬০টি গৃহহীন পরিবার।

এর আগে ১৯৯৬ সালে পানছড়ি আশ্রয়ন প্রকল্পে ৫’শ পরিবারের জন্য নির্মান করা হয়েছিল ৫০টি ব্যারাক। সেখানে ৫’শ পরিবার বসবাস করছে। এনিয়ে পানছড়তে বসবাস করছে ৬৬০টি পরিবার। প্রত্যেকটি ঘর তৈরিতে খরচ হয়েছে ২ লাখ ৫৯ হাজার ৫শ টাকা। ঘরের গুণগত মান ও সরকারের নীতিমালা অনুসরণ করে এসব ঘর তৈরি করা হয়েছে। ইতোমধ্যে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের কর্মকর্তারা ঘর পরিদর্শন করে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেছেন।

উদ্বোধনী সভায় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আব্দুল কাদির লস্কর, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সিদ্ধার্থ ভৌমিক, ভাইস চেয়ারম্যান লুৎফুর রহমান, পৌর মেয়র সাইফুল আলম রুবেল, সহকারি কমিশনার মিল্টন চন্দ্র পাল, আওয়া মীলীগের সভাপতি আকবর হোসেন জিতু, সাধারণ সম্পাদক মো. আবু তাহের, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা প্লাবন পালসহ ইউপি চেয়ারম্যানরা।


এ জাতীয় আরো খবর ....
এক ক্লিকে বিভাগের খবর
Translate »
error: Content is protected !!
Translate »
error: Content is protected !!