বৃহস্পতিবার, ১৮ অগাস্ট ২০২২, ১০:২৮ পূর্বাহ্ন

মোবাইল চু‌রি‌র অভি‌যো‌গে কে‌টে দেওয়া হ‌লো শিশুর চুল

নিজস্ব প্রতিবেদক / ২৩০ বার পড়া হয়েছে
আপডেট টাইম : রবিবার, ১৫ আগস্ট, ২০২১, ৯:০৩ পূর্বাহ্ন

বরিশালের আগৈলঝাড়ায় একটি মোবাইল ফোন চুরির অভিযোগে এক শিশুকে প্রকাশ্যে বাজারে মারধর করে তাঁর মাথার চুল কেটে দেওয়ার অভিযোগ উঠে‌ছে।

শ‌নিবার বিকা‌লে গৈলা বাজা‌রে এই ঘটনা ঘ‌টে।

স্থানীয়রা জানায়, উপজেলার গৈলা ইউনিয়নের উত্তর শিহিপাশা গ্রামের দরিদ্র ভ্যানচালক লাল মিয়া সরদারের শিশু পুত্র সজীব সরদার‌কে (১১) গৈলা বাজারের অলি টেলিকম থেকে একটি মোবাইল ফোন চুরির ঘটনায় স্থানীয় তাওহীদ খানের নেতৃত্বে স্থানীয় এনামুলসহ ৪/৫জন মিলে বিকেলে প্রকাশ্যে মারধর করে। প‌রে সজী‌বের মাথার চুল কেটে দেওয়া হয়।

শিশুর মা সানু বেগম বলেন, দুপুরে তার ছেলে বাড়ি আসে। একটু পরে গৈলা অলি টেলিকমের মালিক অলি বেপারী তাদের বাড়ি এসে সজীবকে বাজারে ডেকে নিয়ে যায়। তার পরে বিকালে তার ছেলে কাঁদতে কাঁদতে বাড়ি এসে জানায় যে একটি মোবাইল ফোন চুরির অপবাদে তাকে মারধর করে মাথার চুল কেটে দিয়েছে।

তিনি ব‌লেন, আমার ছেলে যদি চুরি করে থাকে তাহলে তারা আমার কাছে বিচার দিলে আমি আমার ছেলের বিচার করতাম। আমার শিশু পুত্রকে মারধর করে বাজারের লোকজন অমানবিকভাবে মাথার চুল কেটে দিয়েছে।

অলি টেলিকমের মালিক অলি বেপারী বলেন, আমি দোকানে না থাকা অবস্থায় অন্য একজনের উপস্থিতিতে সজীব আমার দোকান থেকে বিকাশ ও নগদ এজেন্টের দুটি সিম ভরা একটি মোবাইল ফোন চুরি করে নিয়ে যায়। দোকানের সিসি টিভি দেখে সজীবকে ফোন নেওয়ার ঘটনায় তার বাড়িতে গিয়ে তাকে জিজ্ঞেস করলে সে ফোন চুরির কথা শিকার করে। এক পর্যায়ে চুরি যাওয়া ফোনটি সজীব ফেরত দেয়। তার মধ্যে সিম না থাকায় তাকে সিম দুটি ফেরত দিতে বললে সে জানায় সিম ফেলে দিয়েছে। কোথায় ফেলেছে তা দেখানোর জন্য তাকে বাড়ি থেকে ডেকে আনলে সজীব কাঁচা বাজারের ময়লা ফেলার স্থান দেখিয়ে দিলে সেখানে খুঁজে সিম দুটি উদ্ধার করি। পরে তাকে নিয়ে মসজিদে নামাজ পরে মিলাদের তোবারক দিয়ে বাড়ি পাঠিয়ে দেই। এর পরে শুনেছি যে বাজারে বসে তার চুল কেটে দিয়েছে উৎসুক লোকজন।

বাজার ব্যবসায়ী কমিটির সভাপতি সুশান্ত কর্মকার বলেন, বাজারে এসে একটি শিশুর চুল কাটার কথা শুনেছি। তবে কে বা কারা ওই শিশুটির চুল কেটেছে তা তিনি জানেন না।

গৈলা ইউপি চেয়ারম্যান শফিকুল হোসেন টিটু বলেন, লোক মুখে ঘটনা শুনে আমি গৈলা বাজারে উপস্থিত হয়ে শিশুকে মারধর ও চুল কাটার কথা জানতে পারি। অমানবিক এই এই ঘটনায় তিনি আইনগত বিচার দাবি করে জড়িতদের শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

আ‌গৈলঝাড়া থানার ওসি গোলাম ছ‌রোয়ার ব‌লেন, সৌরভ মোল্লা, তাওহীদ ও অলিসহ বেশ ক‌য়েকজন এই ঘটনা ঘ‌টি‌য়ে‌ছে ব‌লে জান‌তে পে‌রে‌ছি‌। যথাযথ আইনগত ব‌্যবস্থা নেওয়া হ‌বে এই ঘটনায়।

খবর: যুগান্তর


এ জাতীয় আরো খবর ....
এক ক্লিকে বিভাগের খবর
Translate »
error: Content is protected !!
Translate »
error: Content is protected !!